রঙিন টেস্টেও রংহীন ইংল্যান্ড

রঙিন টেস্টেও রংহীন ইংল্যান্ড

133
0
SHARE

দ্বিতীয় টেস্টের অর্ধেকটা সময় পার না হতেই অ্যাশেজ হারানোর ঝুঁকিতে পড়ে গেল জো রুটের ইংল্যান্ড। প্রথম টেস্টে তা–ও লড়াই করে হেরেছিল সফরকারীরা। কিন্তু অ্যাডিলেড টেস্টে প্রথম ইনিংস শেষে ২১৫ রানে পিছিয়ে রয়েছে ইংল্যান্ড। তবু ফলোঅন করাননি অধিনায়ক স্টিভেন স্মিথ। এই প্রতিবেদন লেখা পর্যন্ত দ্বিতীয় ইনিংসে ব্যাট করতে নেমে ২৮ রান তুলতেই ১ উইকেট হারিয়েছে স্বাগতিকেরা।

টস জিতেছিলেন রুট, কিন্তু সবাইকে অবাক করে দিয়ে ফিল্ডিং করার সিদ্ধান্ত নেন ইংল্যান্ড অধিনায়ক। প্রথম দিনে ভালো শুরু করেও বড় ইনিংস না খেলার মাশুল দিয়েছে স্মিথের দল। দিবারাত্রির টেস্টের প্রথম দিন শেষে ৪ উইকেট হারিয়ে ২০৯ রান করেছিল তারা। দ্বিতীয় দিনেই অবশ্য চেহারা পাল্টে দেন শন মার্শ। দিনের শুরুতেই পিটার হ্যান্ডসকম্ব আউট হলেও টিম পেইনকে সঙ্গে নিয়ে ৮৫ রানের জুটি গড়েন বাঁহাতি মার্শ। এরপর ৫৭ রানে পেইন আউট হলেও প্যাট কামিন্সকে নিয়ে ৯৯ রানের জুটিতে অস্ট্রেলিয়াকে বড় রানের ভিত্তি দেন মার্শ। শেষ পর্যন্ত তিনি অপরাজিত থাকেন ১২৬ রানে। ৮ উইকেটে ৪৪২ রান করে ইনিংস ঘোষণা করে অস্ট্রেলিয়া।

শেষ বিকেলে ব্যাট করতে নেমে ওপেনার মার্ক স্টোনম্যানের উইকেট হারায় ইংল্যান্ড। কিন্তু আজ তৃতীয় দিনের শুরু থেকেই সফরকারীদের শাসন করতে থাকেন অস্ট্রেলিয়ান বোলাররা। গোলাপি বলের সর্বোচ্চ ফায়দা তুলেছে তাঁরা। নাথান লায়নের ৪ উইকেটের সঙ্গে মিচেল স্টার্কের ৩ উইকেট মিলিয়ে ২২৭ রানেই গুটিয়ে যান রুটরা। সর্বোচ্চ ৪১ রান করেছেন ৯ নম্বরে নামা অভিষিক্ত ক্রেইগ ওভারটন। ভালো শুরু করেও বড় ইনিংস খেলতে ব্যর্থ হয়েছেন জনি বেয়ারস্টো, মঈন আলীর মতো ব্যাটসম্যানরা।

ব্রিসবেনে প্রথম টেস্ট হেরে এমনিতেই পিছিয়ে আছে ইংল্যান্ড। এই টেস্টও হারলে অ্যাশেজ ধরে রাখাটা ভীষণ কঠিন হয়ে যাবে। অন্যদিকে, সুবিধাজনক অবস্থানে স্মিথ। ৪০০ রানের লিড তুলে চতুর্থ ও পঞ্চম দিনে সফরকারীদের ব্যাট করাতে চাইছেন অধিনায়ক। ম্যাচে টিকে থাকতে অস্ট্রেলিয়াকে দ্রুত অলআউট করতে হবে ইংল্যান্ডকে।

NO COMMENTS

LEAVE A REPLY