Home Health কোভিড-১৯ আপডেট: নিউ সাউথ ওয়েলসে সংক্রমণ-সংখ্যা কমছে না, মেলবোর্নে কার্ফিউ জারি ও...

কোভিড-১৯ আপডেট: নিউ সাউথ ওয়েলসে সংক্রমণ-সংখ্যা কমছে না, মেলবোর্নে কার্ফিউ জারি ও লকডাউন বর্ধিত

70
0
নিউ সাউথ ওয়েলসে দু’টি নতুন সাপোর্ট পেমেন্ট।
মেলবোর্নে লকডাউন দু’সপ্তাহের জন্য বাড়ানো হয়েছে।
নর্দার্ন টেরিটোরির কোনো কোনো অংশে লকডাউন।
এসিটি-তে স্থানীয়ভাবে সংক্রমিত নতুন ১৯টি কেস সনাক্ত।

নিউ সাউথ ওয়েলস

নিউ সাউথ ওয়েলসে স্থানীয়ভাবে সংক্রমিত ৪৭৮টি নতুন করোনাভাইরাস কেস সনাক্ত করা হয়েছে এবং কোভিড-সংশ্লিষ্ট কারণে সাত জনের মৃত্যু। এদের মধ্যে পাঁচ জনের টিকা লাগানো ছিল না।

১৭ বছর বা তার চেয়ে বেশি বয়সী কর্মীদের মধ্যে যাদের কোভিড-১৯ উপসর্গ দেখা দিয়েছে এবং যারা ‘এরিয়া অফ কনসার্ন’ এলাকাগুলোতে বাস করেন, তাদের জন্য ৩২০ ডলারের একটি ‘টেস্ট অ্যান্ড আইসোলেট পেমেন্ট’ রাখা হয়েছে।

আর, রেড ক্রসের মাধ্যমে একটি নতুন ৪০০ ডলারের হার্ডশিপ পেমেন্ট পাওয়া যাচ্ছে। অস্থায়ী ভিসাধারী এবং অন্যান্য ইনকাম সাপোর্টের জন্য যারা উপযুক্ততা লাভ করেন না, তাদের জন্য এই পেমেন্ট।

সিডনির ১২টি ভয়ানক-ক্ষতিগ্রস্ত লোকাল গভার্নমেন্ট এরিয়ায় এ সপ্তাহে অতিরিক্ত ৫৩০,০০০ ফাইজার ডোজ পাওয়া যাবে। ২০ থেকে ৩৯ বছর বয়সী ব্যক্তিরা এক্ষেত্রে অগ্রাধিকার পাবেন।

ভিক্টোরিয়া

ভিক্টোরিয়ায় স্থানীয়ভাবে সংক্রমিত নতুন ২২টি কেস সনাক্ত করা হয়েছে। এগুলোর মধ্যে পাঁচটি কেস কোনো জ্ঞাত প্রাদূর্ভাবের সঙ্গে সম্পর্কিত নয়। আর, সংক্রমিত অবস্থায় আটটি কেস কমিউনিটিতে ছিলেন।

মেলবোর্নে লকডাউন আগামী ২ সেপ্টেম্বর, বৃহস্পতিবার রাত ১১:৫৯ পর্যন্ত বর্ধিত করা হয়েছে। আজ রাত ৯টা থেকে সেখানে কার্ফিউ বা সান্ধ্য আইন জারি করা হয়েছে এবং আরও কিছু নিয়ম-কানুন জারি করা হয়েছে।

অস্ট্রেলিয়া জুড়ে বিগত ২৪ ঘণ্টায়

গ্রেটার ডারউইন এবং ক্যাথেরিন রিজিওনে স্থানীয় সময় দুপুর ১২ টা থেকে ৭২ ঘণ্টার জন্য লকডাউন জারি। স্থানীয়ভাবে সংক্রমিত একটি কেস সনাক্ত হওয়ায় এই সিদ্ধান্ত।

এসিটি-তে স্থানীয়ভাবে সংক্রমিত ১৯টি নতুন কেস সনাক্ত করা হয়েছে। সেখানে লকডাউন আরও দু’সপ্তাহের জন্য বর্ধিত করা হয়েছে।

কুইন্সল্যান্ডে কোনো কেস সনাক্ত করা হয় নি।

কোভিড-১৯ মিথ (অতিকথা)

স্বাস্থ্যবান কম-বয়সী ব্যক্তিদের কোভিড-১৯ সংক্রমণ হয় না। শুধুমাত্র বয়স্ক ও অসুস্থ লোকেরা এতে আক্রান্ত হয় ও মারা যায়।
কোভিড-১৯ ফ্যাক্ট (বাস্তবতা)

বয়স্ক লোকদের এবং যাদের নানা প্রকার স্বাস্থ্য-সমস্যা আছে, তাদের ক্ষেত্রে এই ভাইরাসটির ক্ষতিকর প্রভাব অনেক বেশি দেখা যায়। তবে, এর দ্বারা কোনো কোনো কম-বয়সী, স্বাস্থ্যবান ব্যক্তিরাও ক্ষতিগ্রস্ত হয় এবং মারা যায়।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here