দিল্লি দূষণে কাহিল লঙ্কান দল

দিল্লি দূষণে কাহিল লঙ্কান দল

93
0
SHARE

ক্রিকেট মাঠে দূষণ থেকে বাঁচতে মাস্ক পরার ঘটনা খুব বেশি কারও চোখে পড়েছে—এ কথা বলা যাবে না। তবে আজ দিল্লির ফিরোজ শাহ কোটলায় ভারত ও শ্রীলঙ্কার মধ্যকার তৃতীয় টেস্টের দ্বিতীয় দিন দূষণ থেকে নিজেদের রক্ষা করতে মাস্ক পরে মাঠে নামলেন শ্রীলঙ্কার বেশ কয়েকজন ক্রিকেটার। কেবল মাস্ক পরাই নয়, দূষণের কারণে অসুস্থও হয়ে পড়লেন দুই পেসার। বেশ কয়েকবার দূষণের অভিযোগ করে শেষ পর্যন্ত ভারতকে ইনিংস ঘোষণা করতে বাধ্য করালেন তাঁরা।

দুই লঙ্কান পেসার লাহিরু গামাগে আর সুরাঙ্গা লাকমল দূষণের কারণে মাঠ ছেড়ে চলে গেলেন। কেবল তাঁরা দুজনই নয়, মাঠ ছাড়লেন আরও কয়েকজন ফিল্ডার। অবস্থা এমন দাঁড়াল যে মাঠে ১১ জন ফিল্ডার নামাতেই হিমশিম খাচ্ছিল শ্রীলঙ্কা।

ঘটনার শুরু গামাগেকে ঘিরে। হঠাৎ করে বেদম কাশি এই লঙ্কান পেসারের। দূষণের কারণেই নাকি তাঁর এ অবস্থা। এ সময় ১৬ মিনিট বন্ধ থাকে খেলা। এরপর খেলা শুরু হলে প্রথম বলেই ফেরেন রবিচন্দ্রন অশ্বিন। কিছুক্ষণের মধ্যে ফেরেন ২৪৩ রান করা বিরাট কোহলি। এরপর লাকমলের সমস্যা দেখা দিলে তিনি মাঠ ছেড়ে যান। এর পরপরই খেলা আবার বন্ধ হয়ে যায়। দুই লঙ্কান ক্রিকেটার দিনেশ চান্ডিমাল ও অ্যাঞ্জেলো ম্যাথুসের সঙ্গ আলোচনা শুরু করেন আম্পায়াররা। শ্রীলঙ্কার টিম ম্যানেজার আসাঙ্কা গুরুনিসহা ও ভারতীয় কোচ রবি শাস্ত্রীও যোগ দেন এ সময়। এরপর আবার খেলা শুরু হলে মাত্র ৭ বল স্থায়ী হয় ভারতীয় ইনিংস। লাকমল ওভারের একটি বল বাকি থাকতে মাঠ ছেড়ে উঠে গিয়েছিলেন। তাই দিলরুয়ান পেরেরা ওভারটি শেষ করেন। এরপর সানদাকান আরও একটি ওভার করার পর চান্ডিমাল আম্পায়ারকে ‘খেলোয়াড় স্বল্পতা’র কথা জানান। ওই সময় মাঠে ১০ জন শ্রীলঙ্কান খেলোয়াড় ছিলেন।

কিছুটা বিরক্ত হয়েই এ সময় ইনিংস ঘোষণা করে দেন ভারতীয় অধিনায়ক বিরাট কোহলি। স্কোরবোর্ডে তখন ভারতের সংগ্রহ দেখাচ্ছিল ৭ উইকেটে ৫৩৬।

পরিবেশটা খেলার খুব অনুপযোগী ছিল না—এমনটাই কিন্তু শেষ পর্যন্ত প্রমাণ করতে পারলেন ভারতীয় বোলাররা। ইনিংসের শুরুতেই মোহাম্মদ শামির বলে ফিরেছেন দিমুথ করুণারত্নে। এরপর রবীন্দ্র জাদেজা ও ইশান্ত শর্মার বলে আউট হয়েছেন দিলরুয়ান পেরেরা ও ধনঞ্জয়া ডি সিলভা। রানের পাহাড় ঠেলতে নেমে শ্রীলঙ্কার সংগ্রহ ৩ উইকেটে ৮১। এখনো ৪৫৫ রানে পিছিয়ে তারা।

NO COMMENTS

LEAVE A REPLY