Home International দুজন মুসলিম মন্ত্রীসহ শপথ নিয়েছে আলবানিজি সরকারের ব্যতিক্রমি মন্ত্রিসভা

দুজন মুসলিম মন্ত্রীসহ শপথ নিয়েছে আলবানিজি সরকারের ব্যতিক্রমি মন্ত্রিসভা

রেকর্ড সংখ্যক নারী সদস্য এবং বৈচিত্র্য নিয়ে অ্যান্থনি আলবানিজির মন্ত্রিসভা আনুষ্ঠানিকভাবে শপথ গ্রহণ করেছে। কিন্তু বাজেটসহ বিভিন্ন খাতে নতুন সরকারের জন্য চ্যালেঞ্জ হয়ে দাঁড়িয়েছে সাম্প্রতিক মন্থর অর্থনৈতিক প্রবৃদ্ধি এবং জীবনযাত্রার ব্যয় বৃদ্ধি।

গুরুত্বপূর্ণ দিকগুলো

  • অস্ট্রেলিয়ার ইতিহাসে এই প্রথম দুজন মুসলিম মন্ত্রী শপথ নিয়েছেন
  • নতুন মন্ত্রিসভায় প্রথম ইন্ডিজিনাস নারী লিন্ডা বার্নি পাচ্ছেন ইন্ডিজিনাস এফেয়ার্স পোর্টফোলিও
  • ক্রমবর্ধমান মুদ্রাস্ফীতি এবং সুদের হার এবং সেই সাথে কর্মীদের মজুরি হ্রাসের ফলে বাজেটকে ঠিকঠাক করতে জটিল অবস্থা তৈরী হতে পারে

ঐতিহাসিক নতুন মন্ত্রিসভার শপথ অনুষ্ঠানে গভর্নর-জেনারেল ৩০ জন মন্ত্রীকে শপথ পাঠ করান, যার মধ্যে রেকর্ড সংখ্যক ১৩ জন নারী সদস্য – এবং তাদের ১০ জন নারী সদস্য কেবিনেটে স্থান পেয়েছেন।

একইদিন অস্ট্রেলিয়ার প্রথম দুই মুসলিম মন্ত্রীও পবিত্র কুরআন ছুঁয়ে শপথ নিলেন। তাদের একজন সিডনির এমপি এড হিউজিক ইন্ডাস্ট্রি এন্ড সায়েন্স পোর্টফোলিও, এবং অন্যজন পশ্চিম অস্ট্রেলিয়ান এমপি ডক্টর অ্যান অ্যালি আর্লি চাইল্ডহুড এনং ইয়ুথ পোর্টফোলিও পেয়েছেন।

এবং নতুন মন্ত্রিসভায় প্রথম ইন্ডিজিনাস নারী লিন্ডা বার্নি পাচ্ছেন ইন্ডিজিনাস এফেয়ার্স পোর্টফোলিও।

The Nationals leadership team at Parliament House, Canberra

ড. অ্যালি বলেছেন তিনি চান যাতে আরও তরুণ বয়সী নারীরা তার পদাঙ্ক অনুসরণ করতে পারে।

এড হিউজিক ২০১০ সালে পার্লামেন্টে প্রথম মুসলিম এমপি নির্বাচিত হয়েছিলেন। তিনি বলেছেন দেশকে ঐক্যবদ্ধ করতে তার এই নিয়োগ একটি প্রতীকী মুহূর্ত।

তিনি বলেন, এই সরকার অস্ট্রেলিয়ার সমস্ত কমিউনিটির প্রতিনিধিত্বকে প্রতিফলিত করে, এবং আমি মনে করি এটি গুরুত্বপূর্ণ। তার প্রত্যাশা, সংসদে বৈচিত্র্য বা আদর্শ ‘অবিস্মরণীয়’ হয়ে উঠুক।

তবে মন্ত্রিসভায় রেকর্ড সংখ্যক নারী থাকা সত্ত্বেও – এমন সমালোচনা আছে যে পার্টির নেতৃত্বের ভূমিকায় এখনও পুরুষদের আধিপত্য রয়েছে। in a move that’s been hailed as a signal to the world about an improvement iEd Husic and Anne Aly have become the first Muslim ministers in Australia’s history.SBS News

পার্টির সাতটি নেতৃস্থানীয় পদের মধ্যে মাত্র দুটি নারীদের দখলে, একটি হাউজ অফ রিপ্রেজেন্টেটিভসে এবং অপরটি সিনেটে।

কিন্তু অ্যান অ্যালি বলছেন এই মন্ত্রিসভায় লিঙ্গ এবং সাংস্কৃতিক বৈচিত্র্যের প্রতিনিধিত্ব সামগ্রিক অগ্রগতিরই একটি শক্ত প্রতিফলন।

তাছাড়া সিডনির দীর্ঘদিনের এমপি টানিয়া প্লাইবারসেককে নতুন মন্ত্রিসভায় কম গুরুত্বপূর্ণ পদ দেওয়া হয়েছে বলেও দাবি করা হয়েছে।

মিজ প্লাইবারসেক এডুকেশন এন্ড উইমেন বিভাগে বিরোধী দলের মুখপাত্র ছিলেন – কিন্তু এখন তাকে এনভায়রনমেন্ট এন্ড ওয়াটার পোর্টফোলিও দেওয়া হয়েছে।

কিন্তু উপ-প্রধানমন্ত্রী রিচার্ড মার্লেস এবিসি রেডিওকে বলেন, এটা তার পদের কোন অবনমন নয়।NewsLinda Burney Australian Minister for Indigenous Australians is congratulated by Australian Governor-General David Hurley at Government House on June 01, 2022.Getty

শপথ নেওয়া মন্ত্রিসভা ইতিমধ্যে প্রথম বৈঠক করেছে। প্রধানমন্ত্রী অ্যান্থনি আলবানিজি তার সরকারের সাফল্য পেতে দৃঢ়প্রতিজ্ঞ।

তিনি বলেন, আমরা যদি সঠিকভাবে কাজ করতে পারি, তাহলে আমরা দীর্ঘমেয়াদে এখানে থাকতে পারব এবং সত্যিকার অর্থে দেশে পরিবর্তন আনতে পারব।

সরকারের অর্থনৈতিক বিভাগ ইতিমধ্যেই কাজ শুরু করেছে।

সর্বশেষ পরিসংখ্যান থেকে দেখা যায় যে মার্চ কোয়ার্টারে অর্থনীতির প্রবৃদ্ধি ০.৮ শতাংশ এবং বার্ষিক প্রবৃদ্ধি হতে পারে ৩.৩ শতাংশ।

তবে এটি অর্থনীতিবিদরা যে ভবিষ্যদ্বাণী করেছিলেন তার চেয়ে ভালো অবস্থানে আছে। সরকারী ব্যয় এবং মানুষের সাংসারিক ব্যয়ের কারণে অর্থনীতিতে কুইন্সল্যান্ড এবং নিউ সাউথ ওয়েলসের কোভিড-১৯ এবং বন্যার যে অশুভ প্রভাব পড়ার আশংকা করা হয়েছিল তা অনেকটাই কম ছিল।

Australian Federal Election 2022

তবে ট্রেজারার বলছেন, গত সরকারের বাজেটে যা পূর্বাভাস দেওয়া হয়েছিল এবং নির্বাচনের সময় যা প্রত্যাশিত ছিল তার চেয়ে প্রবৃদ্ধির হার কম।

ডক্টর জিম চালমারস বলেছেন যদিও পরিসংখ্যানে অর্থনীতির কিছুটা উন্নতি দেখা যাচ্ছে, কিন্তু ক্রমবর্ধমান মুদ্রাস্ফীতি এবং সুদের হার এবং সেই সাথে কর্মীদের মজুরি হ্রাসের ফলে বাজেটকে ঠিকঠাক করতে জটিল অবস্থা তৈরী হতে পারে।

ড. চালমারস আরও বলেন যে সরকারের “ওয়েস্ট অডিট” ইতিমধ্যে শুরু হয়েছে।

অডিট জনসেবায় ব্যয় নিরীক্ষণ করবে – এবং চেষ্টা করবে বহিরাগত ঠিকাদারদের কম ব্যবহার করতে।

প্রধানমন্ত্রী বিভিন্ন পাবলিক সার্ভিস বিভাগের দায়িত্বে পরিবর্তনেরও ঘোষণা দিয়েছেন – এতে দক্ষতা বৃদ্ধি পাবে বলে প্রত্যাশা করা হচ্ছে। তবে এটি করতে কর্মী ছাঁটাই করা হবে না এমন প্রতিশ্রুতি দেয়া হয়েছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here