জনগণকে বিনামূল্যে করোনা ভ্যাকসিন দেবে অস্ট্রেলিয়া

অক্সফোর্ড ও অ্যাস্ট্রাজেনেকার তৈরি সম্ভাব্য করোনা ভ্যাকসিনটি অনুমোদন পেলে তা নিজ দেশের জনগণের জন্য সহজলভ্য করার চেষ্টা চালাচ্ছে অস্ট্রেলিয়া। জনগণকে ভ্যাকসিনটি বিনামূল্যে প্রদানের পরিকল্পনা করেছে দেশটির সরকার। মঙ্গলবার (১৮ আগস্ট) অস্ট্রেলিয়ার প্রধানমন্ত্রী স্কট মরিসন এ ঘোষণা দেন। ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম বিবিসির প্রতিবেদন থেকে এ তথ্য জানা গেছে।

জনস হপকিন্স বিশ্ববিদ্যালয়ের পরিসংখ্যান অনুযায়ী, বিশ্বে এ পর্যন্ত ২ কোটি ২১ লাখের বেশি মানুষ করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছে। প্রাণ হারিয়েছে ৭ লাখ ৮১ হাজার মানুষ। এ পর্যন্ত অস্ট্রেলিয়ায় আক্রান্ত হয়েছে ২৩ হাজার ৯৯৩ জন। এরমধ্যে ৪৫০ জনের প্রাণহানি হয়েছে।

করোনাভাইরাসের ভ্যাকসিন আবিষ্কারের জন্য চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে বিশ্বের বেশ কয়েকটি দেশ। এরমধ্যে পাঁচটি ভ্যাকসিনকে সম্ভাবনাময় বলে মনে করা হচ্ছে। এর একটি হলো অক্সফোর্ড/অ্যাস্ট্রাজেনেকার তৈরি ভ্যাকসিনটি। এর তৃতীয় ধাপের পরীক্ষা চলছে। অস্ট্রেলিয়ার জনগণের জন্য ভ্যাকসিনটির ডোজ নিশ্চিত করতে এরইমধ্যে অ্যাস্ট্রাজেনেকার সঙ্গে চুক্তি করেছে অস্ট্রেলিয়া।

মঙ্গলবার অস্ট্রেলিয়ার প্রধানমন্ত্রী মরিসন বলেন, ‘যদি এই ভ্যাকসিন সাফল্য পায়, তাহলে আমরা নিজেরাই তা উৎপাদন ও বিতরণ করবো। আড়াই কোটি অস্ট্রেলীয়বাসীর জন্যে তা বিনামূল্যে দেওয়া হবে।’

মরিসন বলেন, আগামী বছরের শুরুর দিকে ভ্যাকসিন অনুমোদন পাবে বলে আশা করা হচ্ছে। আর তা উৎপাদন করতে আরও কয়েক মাস সময় লাগবে।

তিনি আরও বলেন, ‘আমরা একটি মহামারি নিয়ে কথা বলছি, যা বৈশ্বিক অর্থনীতি ধ্বংস করে দিয়েছে এবং বিশ্বের লাখো মানুষের প্রাণ কেড়ে নিয়েছে।’

বিবিসির প্রতিবেদনে বলা হয়, অস্ট্রেলিয়া সরকার ধারণা করছে, জনসংখ্যার অন্তত ৯৫ শতাংশকে তারা ভ্যাকসিন দিতে সক্ষম হবে।

Add Comment